মেহেরপুরে গ্রামীন ঐতিহ্যকে মনে করিয়ে দিতে গ্রামীন খেলাধুলার আয়োজন

এক সময় মেহেরপুরের অলিতে গলিতে পাড়ামহল্লায়  কন্যা শিশুদের বউ-পুতুল, কিতকিত, কপাল টুককা,ইচিং বিচিং, বুকশূল, বুকগাদি, কিশোরদের ডাংগুলি, লুকোচুরি, লাটিম, কাবাডি, দাঁড়িয়াবান্ধা, হাডুডু,কাাবাডি, গোল্লাছুট, কানামাছি, সাতখুলাং, ঘুড়ি উড়ানো ইত্যাদি খেলা গ্রামীণ সংস্কৃতির ঐতিহ্য বহন করতো। শৈশবে যেসব খেলাধুলায় দিন কাটিয়েছেন আজকের বয়ো:-বৃদ্ধরা, তারাও এখন ভুলতে বসেছেন সেইসব খেলার নাম। ঘরে ঘরে বেড়ে গেছে আধুনিক প্রযুক্তির ছোঁয়া । চলছে মোবইল আর কম্পিউটারে  ভিডিও গেমস্‌-এর দৌরাত্ম্য। বাবা মায়েরা তাদের সন্তানগদরকে সুশিক্ষিত করে গড়ে তোলার প্রয়োজনে তাদেরকে তাদের শিকড় থেকে দূরে  সরিয়ে দিচ্ছে ।

এসব খেলা চলাকালে মানুষের ঢল নামতো। এক সময় ছেলে-মেয়েরা গ্রামীণ খেলাকে প্রধান খেলা হিসেবে জানতো। এসব খেলার জায়গায় স্থান দখল করেছে কেরাম, ক্রিকেট, টিভি ও কম্পিউটার গেমস। আদি ক্রীড়া সংস্কৃতিকে বাঁচিয়ে রাখতে গ্রমীণ ক্রীড়া ফেডারেশন গঠন করা দরকার। এতে করে আগামী প্রজন্ম আমাদের এসব খেলাকে জানতে পারবে। ভুলে যাবে না শত বছরের নিজস্ব ক্রীড়া ঐতিহ্য। সঠিক পৃষ্ঠপোষকতা পেলে যেকোন অখ্যাত খেলাও জনপ্রিয় হয়ে উঠতে পারে। এক সময় গ্রামের শিশু-কিশোররা পড়াশুনার পাশাপাশি বিভিন্ন ধরনের খেলায় মেতে উঠতো। বিকেলে খোলা মাঠে দলবেঁধে খেলত সবাই। শৈশবের দুরন্তপনায় মেতে থাকতো ছেলে-মেয়ের দল। আধুনিক প্রযুক্তি যেমন ঐতিহ্যবাহী খেলাধুলাকে কেড়ে নিয়েছে, তেমনি প্রজন্মকে ক্রমেই ঠেলে দিচ্ছে মাদকের দিকে। ফলে ভবিষ্যত বাংলাদেশ হচ্ছে মেধাশূন্য। তাই মাদকের ভয়ালগ্রাস থেকে তরুণ প্রজন্মকে রক্ষা করতে গ্রামীণ খেলাকে বাঁচাতে ধনাঢ্য ব্যক্তিরাই ভূমিকা পালন করতে পারেন। তাছাড়া সরকারি বা বেসরকারি উদ্যোগেও ফিরিয়ে আনা সম্ভব এসব খেলার হারানো ঐতিহ্য। এমনটাই মনে করছেন সবাই।

তাই এই সকল খেলাধুলাকে বাঁচিয়ে রাখতে মেহেরপুরের গাংনী উপজেলায় অনুষ্ঠিত হয়ে গেল বিভিন্ন রকম গ্রামীন খেলা ধুলার এক ব্যাতিক্রম ধর্মী আয়োজন । শিশু কিশোর কিশোরী যুবক যবতী প্রৌঢ়-প্রৌঢ়া বৃদ্ধ- বৃদ্ধা সবিই অংশগ্রহনে এক মনোমুগ্ধকর পরিবেশেরসৃষ্টি হয়  হয়  এই খেলা উপলক্ষ্যে । নানান রকম খেলায় সব বয়সী লোকজনের অংশগ্রহনে অত্যন্ত আনন্দমুখর পরিবেশের সৃষ্টি হয় এখানে ।

এবারে দেখুন এর উপর একটি বিশেষ প্রতিবেদন ।


















Share this:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

 
Copyright © মেহেরপুর ২৪. Designed by OddThemes